Dhaka ১১:৩৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ১২ জুন ২০২৪, ২৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

পটিয়ায় ৭ শিক্ষকের বদলির স্থগিতাদেশ বহাল রেখেছে সুপ্রিমকোর্ট

  • Reporter Name
  • Update Time : ০১:১৪:৩২ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৯ জুলাই ২০২৩
  • 8

চট্টগ্রাম ব্যুরো : পটিয়া পৌরসদরের শশাংকমালা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৭ শিক্ষকের বদলির স্থগিতাদেশ বহাল রেখেছে সুপ্রিমকোর্টের আপিল বিভাগ। জানা গেছে, গত ৫ জুলাই হাইকোর্টের বিচারপতি সরদার মোহাম্মদ রশিদ জাহাঙ্গীর ও বিচারপতি মোহাম্মদ বজলুর রহমানের বেঞ্চে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা অধিদপ্তরের সহকারি পরিচালক নাসরিন সুলতানা স্বাক্ষরিত বদলির এ আদেশকে অবৈধ ঘোষণা করে রুলনিশি জারি করে বদলির আদেশ স্থগিত করেন।

ওই স্থগিতাদেশের বিরুদ্ধে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক সুপ্রিমকোর্টের আপিল বিভাগের চেম্বার জজ আদালতে স্থগিতাদেশ প্রত্যাহার চেয়ে আদেশটি যুক্তিযুক্ত কিনা নির্দেশনা চেয়ে একটি আবেদন করেন।

উক্ত আবেদন চেম্বার জজ আদালত শুনানি শেষে গত ১৬ জুলাই খারিজ করে দেন। ফলে হাইকোর্টের দেওয়া স্থগিতাদেশটি বহাল থাকে। বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হারুনুর রশিদের সাথে পরিচালনা কমিটির সহ–সভাপতি আবু তৈয়ব সোহেল ও দৃষ্টি প্রতিবন্ধী শিক্ষিকা উম্মে হাবিবা চৌধুরীর বিরোধের জের ধরে গত ১৩ জুন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক নাসরিন সুলতানা স্বাক্ষরিত এক আদেশে একযোগে ১৭ জন শিক্ষককে বদলির আদেশ দেন।

এদের মধ্যে ১০ জন শিক্ষক বদলিকৃত স্থানে যোগদান করলেও ৭ জন শিক্ষক যোগদান না করে বদলি আদেশ স্থগিতাদেশ চেয়ে হাইকোর্টে একটি রিট পিটিশন দায়ের করে। হাইকোর্ট থেকে বদলির আদেশ স্থগিত হওয়ায় গত ১০ জুলাই ৭ জন শিক্ষক তাদের পূর্বের কর্মস্থল শশাংকমালা প্রাথমিক বিদ্যালয়ে যোগদান করেছেন।

Tag :

পটিয়ায় ৭ শিক্ষকের বদলির স্থগিতাদেশ বহাল রেখেছে সুপ্রিমকোর্ট

Update Time : ০১:১৪:৩২ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৯ জুলাই ২০২৩

চট্টগ্রাম ব্যুরো : পটিয়া পৌরসদরের শশাংকমালা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৭ শিক্ষকের বদলির স্থগিতাদেশ বহাল রেখেছে সুপ্রিমকোর্টের আপিল বিভাগ। জানা গেছে, গত ৫ জুলাই হাইকোর্টের বিচারপতি সরদার মোহাম্মদ রশিদ জাহাঙ্গীর ও বিচারপতি মোহাম্মদ বজলুর রহমানের বেঞ্চে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা অধিদপ্তরের সহকারি পরিচালক নাসরিন সুলতানা স্বাক্ষরিত বদলির এ আদেশকে অবৈধ ঘোষণা করে রুলনিশি জারি করে বদলির আদেশ স্থগিত করেন।

ওই স্থগিতাদেশের বিরুদ্ধে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক সুপ্রিমকোর্টের আপিল বিভাগের চেম্বার জজ আদালতে স্থগিতাদেশ প্রত্যাহার চেয়ে আদেশটি যুক্তিযুক্ত কিনা নির্দেশনা চেয়ে একটি আবেদন করেন।

উক্ত আবেদন চেম্বার জজ আদালত শুনানি শেষে গত ১৬ জুলাই খারিজ করে দেন। ফলে হাইকোর্টের দেওয়া স্থগিতাদেশটি বহাল থাকে। বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হারুনুর রশিদের সাথে পরিচালনা কমিটির সহ–সভাপতি আবু তৈয়ব সোহেল ও দৃষ্টি প্রতিবন্ধী শিক্ষিকা উম্মে হাবিবা চৌধুরীর বিরোধের জের ধরে গত ১৩ জুন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক নাসরিন সুলতানা স্বাক্ষরিত এক আদেশে একযোগে ১৭ জন শিক্ষককে বদলির আদেশ দেন।

এদের মধ্যে ১০ জন শিক্ষক বদলিকৃত স্থানে যোগদান করলেও ৭ জন শিক্ষক যোগদান না করে বদলি আদেশ স্থগিতাদেশ চেয়ে হাইকোর্টে একটি রিট পিটিশন দায়ের করে। হাইকোর্ট থেকে বদলির আদেশ স্থগিত হওয়ায় গত ১০ জুলাই ৭ জন শিক্ষক তাদের পূর্বের কর্মস্থল শশাংকমালা প্রাথমিক বিদ্যালয়ে যোগদান করেছেন।