Dhaka ১২:২২ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মিরসরাইয়ে কালবৈশাখীর তান্ডবে ব্যাপক ক্ষতি

  • Reporter Name
  • Update Time : ০৮:০৩:৪৯ অপরাহ্ন, সোমবার, ৬ মে ২০২৪
  • 29

মিরসরাই প্রতিনিধি: চট্টগ্রামের মিরসরাইয়ে কালবৈশাখী ঝড়ের তাণ্ডবে ফসল, ঘরবাড়ি, বৈদ্যুতিক খুঁটি ও তারের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। ৬ মে সোমবার দুপুর থেকে শুরু হওয়া প্রায় দেড়ঘণ্টার তাণ্ডবে অনেক জায়গায় ঘরবাড়ি লন্ডভন্ড হয়ে গেছে। উড়ে গেছে বসতঘরের টিনের চাল। উপড়ে পড়েছে বড় বড় গাছ। বোরো ধান, আম ও কাঁঠালের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। গাছ পড়ে উপজেলা ভূমি অফিসের একটি ভবন ভেঙে গেছে। এসময় উপজেলার বেশ কয়েকটি স্কুলের অন্তত ২০ জন শিক্ষার্থী আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এছাড়াও মিঠাছড়া এলাকায় বজ্রপাতে পাইপ ফেটে যাওয়ায় গ্যাস সরবরাহ বন্ধ রয়েছে। চট্টগ্রাম থেকে কর্মীরা এসে গ্যাস লাইন মেরামতের কাজ করছেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, কালবৈশাখী ঝড়ে বারইয়ারহাট পৌরসভা, মিরসরাই পৌরসভা, মিরসরাই সদর ইউনিয়ন, মিঠানালা, ওয়াহেদপুর, দুর্গাপুর, খৈয়াছড়া, কাটাছড়া ও ইছাখালী ইউনিয়নে বিভিন্ন জায়গায় ব্যাপকভাবে গাছপালা উপড়ে গেছে। অনেক জায়গায় গাছ পড়ে ভেঙে গেছে ঘরবাড়ি।

আবুরহাট উচ্চ বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি নুরুল আবছার বলেন, স্কুল শেষে বাড়ি ফেরার পথে ঝড়ের কবলে পড়ে অন্তত ২০ শিক্ষার্থী আহত হয়েছে। তাদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে তাদের বাড়িতে পাঠানো হয়। মিরসরাই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের দায়িত্বরত চিকিৎসক তন্ময় জামশেদ বলেন, শিক্ষার্থীরা প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে বাড়িতে চলে গেছে।

উপজেলার মিঠানালা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এম এ কাশেম বলেন, ঝড়ে আমার এলাকার অনেক জায়গায় গাছপালা ভেঙে পড়ে ঘরবাড়ি নষ্ট হয়েছে। সড়কে গাছ পড়ে গাড়ি চলাচল বন্ধ রয়েছে। বন্ধ রয়েছে বিদ্যুৎ সংযোগ।

এদিকে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা প্রতাপ চন্দ্র রায় বলেন, মিরসরাইয়ে এবার প্রায় ১৮০০ হেক্টর জমিতে বোরো আবাদ হয়েছে। কালবৈশাখীতে অনেক জায়গায় বোরো ধান জমিনে শুয়ে গেছে। কিছু কিছু জায়গায় পানি জমে গেছে। তবে বৃষ্টি আর না হলে তেমন ক্ষতি হবে না।

Tag :
সর্বাধিক পঠিত

https://dainiksurjodoy.com/wp-content/uploads/2023/12/Green-White-Modern-Pastel-Travel-Agency-Discount-Video5-2.gif

দাঁতমারা সেলফি রোড়ে গাছের সঙ্গে মোটরসাইকেলের ধাক্কায় নিহত ১

মিরসরাইয়ে কালবৈশাখীর তান্ডবে ব্যাপক ক্ষতি

Update Time : ০৮:০৩:৪৯ অপরাহ্ন, সোমবার, ৬ মে ২০২৪

মিরসরাই প্রতিনিধি: চট্টগ্রামের মিরসরাইয়ে কালবৈশাখী ঝড়ের তাণ্ডবে ফসল, ঘরবাড়ি, বৈদ্যুতিক খুঁটি ও তারের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। ৬ মে সোমবার দুপুর থেকে শুরু হওয়া প্রায় দেড়ঘণ্টার তাণ্ডবে অনেক জায়গায় ঘরবাড়ি লন্ডভন্ড হয়ে গেছে। উড়ে গেছে বসতঘরের টিনের চাল। উপড়ে পড়েছে বড় বড় গাছ। বোরো ধান, আম ও কাঁঠালের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। গাছ পড়ে উপজেলা ভূমি অফিসের একটি ভবন ভেঙে গেছে। এসময় উপজেলার বেশ কয়েকটি স্কুলের অন্তত ২০ জন শিক্ষার্থী আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এছাড়াও মিঠাছড়া এলাকায় বজ্রপাতে পাইপ ফেটে যাওয়ায় গ্যাস সরবরাহ বন্ধ রয়েছে। চট্টগ্রাম থেকে কর্মীরা এসে গ্যাস লাইন মেরামতের কাজ করছেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, কালবৈশাখী ঝড়ে বারইয়ারহাট পৌরসভা, মিরসরাই পৌরসভা, মিরসরাই সদর ইউনিয়ন, মিঠানালা, ওয়াহেদপুর, দুর্গাপুর, খৈয়াছড়া, কাটাছড়া ও ইছাখালী ইউনিয়নে বিভিন্ন জায়গায় ব্যাপকভাবে গাছপালা উপড়ে গেছে। অনেক জায়গায় গাছ পড়ে ভেঙে গেছে ঘরবাড়ি।

আবুরহাট উচ্চ বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি নুরুল আবছার বলেন, স্কুল শেষে বাড়ি ফেরার পথে ঝড়ের কবলে পড়ে অন্তত ২০ শিক্ষার্থী আহত হয়েছে। তাদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে তাদের বাড়িতে পাঠানো হয়। মিরসরাই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের দায়িত্বরত চিকিৎসক তন্ময় জামশেদ বলেন, শিক্ষার্থীরা প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে বাড়িতে চলে গেছে।

উপজেলার মিঠানালা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এম এ কাশেম বলেন, ঝড়ে আমার এলাকার অনেক জায়গায় গাছপালা ভেঙে পড়ে ঘরবাড়ি নষ্ট হয়েছে। সড়কে গাছ পড়ে গাড়ি চলাচল বন্ধ রয়েছে। বন্ধ রয়েছে বিদ্যুৎ সংযোগ।

এদিকে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা প্রতাপ চন্দ্র রায় বলেন, মিরসরাইয়ে এবার প্রায় ১৮০০ হেক্টর জমিতে বোরো আবাদ হয়েছে। কালবৈশাখীতে অনেক জায়গায় বোরো ধান জমিনে শুয়ে গেছে। কিছু কিছু জায়গায় পানি জমে গেছে। তবে বৃষ্টি আর না হলে তেমন ক্ষতি হবে না।