Dhaka ০১:৫১ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৭ জুলাই ২০২৪, ২ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

দুবাই প্রবাসীদের টাকা হাতিয়ে উল্টো হুমকি দিচ্ছে প্রতারক আবছার

তপন তালুকদার: সংযুক্ত আরব আমিরাত থেকে প্রবাসীদের ১ লক্ষ ১৩ হাজার দিরহাম হাতিয়ে নিয়ে উল্টো হুমকি দিচ্ছে আবছার নামে এক প্রতারক। সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাইয়ে প্রতারণা করে টাকা হাতিয়ে নিয়ে এখন পুলিশ পরিচয়ে ফোন করে প্রতারনার নতুন কৌশল অবলম্বন করেছে আবছার।

গত ২৬ ফেব্রুয়ারি একটি ফোন নাম্বারে ইমু ব্যবহার করে সেখানে দুবাই পুলিশের ড্রেস পরিহিত একটি ছবি সংযুক্ত করে বার বার পাওনাদারদের হুমকি দেয়া হচ্ছে। এমনটাই অভিযোগ করেছেন দেশটির প্রাদেশিক শহর দুবাইয়ের ক্ষতিগ্রস্ত ৩ প্রবাসী বাংলাদেশি।

সূত্র জানায়, দুবাই প্রবাসী এই প্রতারক আবছারের বাড়ী চট্টগ্রামের দোহাজারী এলাকায়। তিনি দোহাজারী পৌরসভার উত্তর দিয়াকুল এলাকার মোহাম্মদ ইসহাক মিয়ার সন্তান।

প্রতারক আবছার নামের ঐ ব্যাক্তি প্রবাসী হিসেবে বাংলাদেশ থেকে দুবাই এসেছিলেন। দুবাইয়ে সে ফ্যালকন গ্লোবাল জেনারেল ট্রেডিং এল এল সি কোম্পানীতে চাকুরি করলেও অর্থ চুরির দায়ে সে চাকুরিটি তাকে হারাতে হয় বলে জানিয়েছেন ওই কোম্পানীটির মালিক।

বর্তমানে তিনি কর্ম হিসেবে বেছে নিয়েছেন সহজ সরল প্রবাসীদের সাথে নানা ধরনের প্রতারণা করে অর্থ হাতিয়ে নেওয়ার কাজ। সহজ সরল সাধারণ প্রবাসীদের কৌশলে মিথ্যে স্বপ্ন দেখান স্বল্প বিনিয়োগে বিপুল পরিমাণ মুনাফা অর্জনের। সফলও হয় প্রতারক আবছার। তার কৌশলী প্রতারনার জালে পা দেয় সহজ সরল প্রবাসীরা। দ্রুত উন্নতির আশায় বেশ কয়েকজন প্রবাসী নানা অংকের অর্থ তুলে দেন প্রতারক আবছার হাতে।

সে প্রবাসীদের কাছ থেকে হাতিয়ে নেওয়া অর্থের পরিমাণ ১ লক্ষ ১৩ হাজার দিরহাম। ক্ষতিগ্রস্ত প্রবাসীরা জানায়, দুবাইয়ের দেরা এলাকায় মায়ের দোয়া নামক একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সাথে ব্যবসা করে অধিক মুনাফা অর্জনের স্বপ্ন দেখান প্রতারক আবছার। প্রবাসীদের অর্থ হাতিয়া নেওয়ার জন্য সে নানা ধরনের কৌশল অবলম্বন করেন। আবছারের প্রতারণার জালে পা দিয়ে বেশ কয়েকজন প্রবাসী বাংলাদেশ এবং আমিরাতের বিভিন্ন ব্যাংক থেকে লোন নিয়ে তার হাতে তুলে দেন হাজার হাজার দেরহাম।

অভিযোগকারীরা আরো জানান, শুধুমাত্র বাংলাদেশী নয় পাকিস্তান এবং ভারত সহ বিভিন্নজনের কাছ থেকে সে মায়ের দোয়া নামক ব্যবসা প্রতিষ্ঠানটিতে বিনিয়োগের নামে প্রতারণার মাধ্যমে দিরহাম হাতিয়ে নিয়েছে।

এ ব্যাপারে বাংলাদেশ কনস্যুলেটের লেবার কনস্যুলার মোসাঃ লুৎফুন নাহার নাজীম জানান, অভিযোগকারীদেরকে অভিযোগ দিতে বলেছেন। এই ধরনের প্রতারণা থেকে প্রবাসী বাংলাদেশীদের সজাগ থাকার আহ্বান জানান তিনি।

Tag :
সর্বাধিক পঠিত

https://dainiksurjodoy.com/wp-content/uploads/2023/12/Green-White-Modern-Pastel-Travel-Agency-Discount-Video5-2.gif

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ ঘোষণা, সন্ধ্যা ৬ টার মধ্যে হল ছাড়ার নির্দেশ

দুবাই প্রবাসীদের টাকা হাতিয়ে উল্টো হুমকি দিচ্ছে প্রতারক আবছার

Update Time : ০১:৪০:৩৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১ মার্চ ২০২৪

তপন তালুকদার: সংযুক্ত আরব আমিরাত থেকে প্রবাসীদের ১ লক্ষ ১৩ হাজার দিরহাম হাতিয়ে নিয়ে উল্টো হুমকি দিচ্ছে আবছার নামে এক প্রতারক। সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাইয়ে প্রতারণা করে টাকা হাতিয়ে নিয়ে এখন পুলিশ পরিচয়ে ফোন করে প্রতারনার নতুন কৌশল অবলম্বন করেছে আবছার।

গত ২৬ ফেব্রুয়ারি একটি ফোন নাম্বারে ইমু ব্যবহার করে সেখানে দুবাই পুলিশের ড্রেস পরিহিত একটি ছবি সংযুক্ত করে বার বার পাওনাদারদের হুমকি দেয়া হচ্ছে। এমনটাই অভিযোগ করেছেন দেশটির প্রাদেশিক শহর দুবাইয়ের ক্ষতিগ্রস্ত ৩ প্রবাসী বাংলাদেশি।

সূত্র জানায়, দুবাই প্রবাসী এই প্রতারক আবছারের বাড়ী চট্টগ্রামের দোহাজারী এলাকায়। তিনি দোহাজারী পৌরসভার উত্তর দিয়াকুল এলাকার মোহাম্মদ ইসহাক মিয়ার সন্তান।

প্রতারক আবছার নামের ঐ ব্যাক্তি প্রবাসী হিসেবে বাংলাদেশ থেকে দুবাই এসেছিলেন। দুবাইয়ে সে ফ্যালকন গ্লোবাল জেনারেল ট্রেডিং এল এল সি কোম্পানীতে চাকুরি করলেও অর্থ চুরির দায়ে সে চাকুরিটি তাকে হারাতে হয় বলে জানিয়েছেন ওই কোম্পানীটির মালিক।

বর্তমানে তিনি কর্ম হিসেবে বেছে নিয়েছেন সহজ সরল প্রবাসীদের সাথে নানা ধরনের প্রতারণা করে অর্থ হাতিয়ে নেওয়ার কাজ। সহজ সরল সাধারণ প্রবাসীদের কৌশলে মিথ্যে স্বপ্ন দেখান স্বল্প বিনিয়োগে বিপুল পরিমাণ মুনাফা অর্জনের। সফলও হয় প্রতারক আবছার। তার কৌশলী প্রতারনার জালে পা দেয় সহজ সরল প্রবাসীরা। দ্রুত উন্নতির আশায় বেশ কয়েকজন প্রবাসী নানা অংকের অর্থ তুলে দেন প্রতারক আবছার হাতে।

সে প্রবাসীদের কাছ থেকে হাতিয়ে নেওয়া অর্থের পরিমাণ ১ লক্ষ ১৩ হাজার দিরহাম। ক্ষতিগ্রস্ত প্রবাসীরা জানায়, দুবাইয়ের দেরা এলাকায় মায়ের দোয়া নামক একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সাথে ব্যবসা করে অধিক মুনাফা অর্জনের স্বপ্ন দেখান প্রতারক আবছার। প্রবাসীদের অর্থ হাতিয়া নেওয়ার জন্য সে নানা ধরনের কৌশল অবলম্বন করেন। আবছারের প্রতারণার জালে পা দিয়ে বেশ কয়েকজন প্রবাসী বাংলাদেশ এবং আমিরাতের বিভিন্ন ব্যাংক থেকে লোন নিয়ে তার হাতে তুলে দেন হাজার হাজার দেরহাম।

অভিযোগকারীরা আরো জানান, শুধুমাত্র বাংলাদেশী নয় পাকিস্তান এবং ভারত সহ বিভিন্নজনের কাছ থেকে সে মায়ের দোয়া নামক ব্যবসা প্রতিষ্ঠানটিতে বিনিয়োগের নামে প্রতারণার মাধ্যমে দিরহাম হাতিয়ে নিয়েছে।

এ ব্যাপারে বাংলাদেশ কনস্যুলেটের লেবার কনস্যুলার মোসাঃ লুৎফুন নাহার নাজীম জানান, অভিযোগকারীদেরকে অভিযোগ দিতে বলেছেন। এই ধরনের প্রতারণা থেকে প্রবাসী বাংলাদেশীদের সজাগ থাকার আহ্বান জানান তিনি।